যুক্তরাজ্যে রাজনৈতিক আশ্রয় প্রার্থনা ব্যারিস্টার সাকিলার জঙ্গি অর্থায়ন মামলায় সাজার ভয়

জঙ্গি অর্থায়নে সন্ত্রাস দমন আইনে দায়েরকৃত দুই মামলায় ‘সাজার ভয়ে’ যুক্তরাজ্যে রাজনৈতিক আশ্রয় চেয়ে আবেদন করেছেন বিএনপি নেত্রী ও সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার সাকিলা ফারজানা। গত ১৪ মার্চ দেশ ত্যাগ করে যুক্তরাজ্যে পাড়ি জমিয়েছেন তিনি।

বিএনপির দলীয় একটি সূত্র জানিয়েছেন, ব্যারিস্টার সাকিলা সন্ত্রাস দমন আইনে দুই মামলায় ‘সাজা হওয়ার ভয়ে’ যুক্তরাজ্যে গিয়ে বিএনপি নেতা পরিচয়ে রাজনৈতিক আশ্রয়ের আবেদন করেছেন। মামলা দুটির অভিযাগ গঠন হলে তার অন্তবর্তীকালীন জামিন বাতিল হওয়ার শঙ্কায় আগেভাগে তিনি দেশ ছেড়ে যুক্তরাজ্যে আশ্রয় নিয়েছেন।

সূত্র আরো জানায়, যুক্তরাজ্যে বসবাসরত চট্টগ্রামের ফটিকছড়ির সন্তান একজন ব্যারিস্টারের মাধ্যমে সাকিলা ফারজানা রাজনৈতিক আশ্রয়ের আবেদন করেছেন। যুক্তরাজ্যে অবস্থানের কারণে ব্যারিস্টার সাকিলা ফারজানার সঙ্গে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

প্রসঙ্গত, জঙ্গি সংগঠন ‘শহীদ হামজা ব্রিগেড’কে অস্ত্র কেনায় এক কোটি ৮ লাখ টাকা জোগানোর অভিযোগে ২০১৫ সালের ১৮ আগস্ট রাতে রাজধানীর ধানমন্ডি থেকে বিএনপির সাবেক হুইপ মরহুম সৈয়দ ওয়াহিদুল আলমের মেয়ে ব্যারিস্টার সাকিলা ফারজানাকে আটক করে র‌্যাব। এ সময় তার দুই সহকারী আইনজীবীও আটক হন। পরে তাদের চট্টগ্রামের বাঁশখালী ও হাটহাজারী থানায় সন্ত্রাস দমন আইনে দায়েরকৃত পৃথক দুটি মামলায় গ্রেপ্তার দেখানো হয়।

২০১৬ সালের ২১ মার্চ বাঁশখালী থানার সন্ত্রাস দমন আইনের মামলায় জঙ্গি সংগঠন ‘হামজা ব্রিগেড’কে অর্থায়নের অভিযোগে আদালতে ব্যারিস্টার সাকিলাসহ ২৮ জনের বিরুদ্ধে চার্জশিট দেয় র‌্যাব। এরপর ২০১৬ সালের ৩ এপ্রিল হাটহাজারী থানার সন্ত্রাস দমন আইনের মামলায় একই অভিযোগে ব্যারিস্টার সাকিলাসহ ৩৩ জনের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট দেয় র‌্যাব।

২০১৬ সালের ২২ ফেব্রুয়ারি হাইকোর্ট সাকিলাকে মামলা দুটির অভিযোগ (চার্জ) গঠন না হওয়া পর্যন্ত অন্তবর্তীকালীন জামিন দেন। ২০১৬ সালের ৭ জুন চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় কারাগার থেকে মুক্তি পান তিনি। সন্ত্রাস দমন ট্রাইব্যুনালে মামলা দুটি চার্জ গঠনের অপেক্ষায় রয়েছে বলে জানিয়েছেন চট্টগ্রাম জেলা পুলিশের আদালত পরিদর্শক বিজন বড়ুয়া।

চট্টগ্রামের জেলা পিপি সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী জানান, মামলা দুটির চার্জ গঠনের সময় আসামিরা যদি হাজির না থাকেন, তাহলে আদালত গ্রেপ্তারি পরোয়ানা ইস্যু করতে পারেন।

news  by বিচিত্রবাংলা ডেস্ক.

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *